ঢাকা, রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪
Sharenews24

অর্ধকোটি টাকায় পশু কোরবানি

ইফাত আমার ছেলে নন : রাজস্ব কর্মকর্তা মতিউর রহমান

২০২৪ জুন ১৯ ১৬:২৩:২২
ইফাত আমার ছেলে নন : রাজস্ব কর্মকর্তা মতিউর রহমান

নিজস্ব প্রতিবেদক : এবার ঈদুল আযহায় মুশফিকুর রহমান ইফাত একটি ছাগল কিনেছেন ১৫ লাখ টাকায়। তার ছাগল কেনার ভিডিও ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে।

ছাগল কিনে আলোচনায় আসা ইফাত ছাগলের পাশাপাশি আরও চারটি গরু কিনেছেন ৩৭ লাখ টাকায়। সব মিলিয়ে ৫২ লাখ টাকায় অর্ধকোটি টাকার কোরবানি দিয়েছেন তিনি।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ইফাতে ছাগল কেনা ও গরু কেনার বিষয় নিয়ে চলছে বিস্তর আলোচনা-সমালোচনা। গুঞ্জন উঠেছিল যে, তিনি জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের কর্মকর্তা মতিউর রহমানের ছেলে।

কিন্তু জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের কর্মকর্তা মতিউর রহমান এই বিষয়ে অস্বীকৃতি জানান। তিনি জানান, ‘আমার এক ছেলে রয়েছে, তার নাম তৈাফিকুর রহমান। আলোচিত ইফাত আমার ছেলে নন। এমনকি আত্মীয় বা পরিচিতও নন।’

শিগগিরই আনুষ্ঠানিকভাবে এসব অপ্রচারের প্রতিবাদ করবেন বলে জানিয়েছেন জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের ওই কর্মকর্তা।

এদিকে, ঢাকার মোহাম্মদপুরে অবস্থিত ‘সাদিক এগ্রো’ ফার্ম কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, এক লাখ টাকা বুকিং মানি দেওয়ার পরেও শেষ পর্যন্ত ১৭৫ কেজি ওজনের ওই খাসিটি সংগ্রহ করেননি ওই যুবক।

এই বিষয়ে আগের খবর

এনবিআর কর্মকর্তার ছেলের ৫২ লাখ টাকার কোরবানির পশু

সাদিক এগ্রো বিটল প্রজাতির ওই ছাগলটির ১৫ লাখ টাকা দাম চেয়েছিল। তবে পরে ১২ লাখ টাকায় বিক্রির চুক্তি হয়।

এই অবস্থায় ক্রেতার দেয়া আগাম টাকা ফেরত দেয়া হবে কিনা, জানতে চাইলে জানানো হয়, যৌক্তিক কারণ থাকলে অবশ্যই আমরা ওর আগাম টাকা ফেরত দিবো। তা না হলে টাকা বাজেয়াপ্তের হুঁশিয়ারি দিয়েছে সাদিক এগ্রো।

উল্লেখ্য, মতিউর রহমান বিসিএস-কাস্টমস ক্যাডারের কর্মকর্তা ছিলেন। তিনি জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের কমিশনার ছিলেন। পরে সরকারের যুগ্নসচিব পদে পদোন্নতি পেয়ে অবসর গ্রহণ করেন।

অবসর গ্রহণের পর তিনি রাষ্ট্রায়াত্ব সোনালী ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদের মনোনীতি পরিচালক ছিলেন।

এএসএম/

পাঠকের মতামত:

জাতীয় এর সর্বশেষ খবর

জাতীয় - এর সব খবর



রে