ঢাকা, শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪
Sharenews24

শেয়ারবাজারে নড়েচড়ে বসছে মৌলভিত্তির শেয়ার

২০২৪ জুন ২০ ১৫:০৭:৩৬
শেয়ারবাজারে নড়েচড়ে বসছে মৌলভিত্তির শেয়ার

নিজস্ব প্রতিবেদক : অনেক দিন পর শেয়ারবাজারে নড়েচড়ে বসেছে মৌলভিত্তির শেয়ার হিসাবে পরিচিত বড় মূলধনী কোম্পানির শেয়ার। যেগুলো বিনিয়োগকারীদের ভালো ডিভিডেন্ড দেয়। এসব শেয়ার দীর্ঘদিন যাবত প্রায় ঘুমিয়ে ছিল। সিংহভাগ কোম্পানির লেনদেনও ছিল নামকাওয়াস্তে। আজ কোম্পানিগুলোর শেয়ার দর যেমন বেড়েছে, পাশাপাশি লেনদেনও ছিল চোখে পড়ার মতো।

কোম্পানিগুলোর মধ্যে রয়েছে লিন্ডে বিডি, রেনেটা, স্কয়ার ফার্মা, ওয়ালটন হাইটেক, হাইডেলবার্গ,লাফার্জহোলসিম, গ্রামীণফোন, রবি আজিয়াটা, ব্র্যাক ব্যাংক। এসব মৌলভিত্তির বড় মূলধনী কোম্পানির শেয়ার দর বাড়াতে শেয়ারবাজারে সূচকরে বড় উত্থান হয়েছে। দীর্ঘদিন পর বিনিয়োগকারীরা শেয়ারবাজারে এমন উত্থান দেখেছে।

কোম্পানিগুলোর মধ্যে আজ রেনেটা, ওয়ালটন হাইটেক বিক্রেতাশুন্য ছিল। এই দৃশ্য দেখা গেল অনেক দিন পর। আবারঅন্তবর্তী ডিভিডেন্ড ঘোষণার কারণে একদিনেই লিন্ডে বিডির দর বেড়েছে ৪৩ শতাংশের বেশি।

তথ্য বিশ্লেষণে দেখা যায়, চলতি বছরের ৫ মাস ১৩ দিনে শেয়ারবাজারের সূচক কমেছে ১ হাজার ১২৯ পয়েন্ট। এই সময়ে বিনিয়োগকারীরা মূলধন হারিয়েছে ১ লাখ ৪৭ হাজার ২৫৬ কোটি টাকা।

বছরের শুরুতে (০১ জানুয়ারি) প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) প্রধান সূচক ছিল ৬ হাজার ২৪৬ পয়েন্ট এবং বাজার মূলধন ছিল ৭ লাখ ৮০ ৮৪৯ কোটি টাকা। ঈদের দুদিন আগে ডিএসইর সূচক কমে দাঁড়িয়েছিল ৫ হাজার ১১৭ পয়েন্টে এবং বাজার মূলধন দাঁড়িয়েছিল ৬ লাখ ৩৩ হাজার ৫৯৩ কোটি টাকায়। ৫ মাস ১৩ দিনে ডিএসইর সূচক কমে গেছে ১ হাজার ১২৯ পয়েন্ট এবং বাজার মূলধন কমে গেছে ১ লাখ ৪৭ হাজার ২৫৬ কোটি টাকা।

এরপর ঈদের আগে ১২ জুন বাজার ঘুরে দাঁড়ায়। ঈদের আগের দুই দিনে সূচক উদ্ধার হয় ৪৭ পয়েন্ট এবং বিনিয়োগকারীদের মূলধন ফিরে আসে ২ হাজার ৯২৩ কোটি টাকা।

ঈদে ৫ দিন ছুটির পর গতকাল বুধবার বাজার ইতিবাচক ধারায় থাকে। এদিন ডিএসইর সূচক বাড়ে সাড়ে ৪৩ পয়েন্ট। আর বিনিয়োগকারীদের মূলধন ফিরে ৩ হাজার ২৬৫ কোটি টাকা।

আজ দ্বিতীয় দিনে ডিএসইর সূচক বেড়েছে পৌনে ৮৩ পয়েন্ট।যার ফলে একদিনেইবিনিয়োগকারীদের মূলধন ফিরেছে৬ হাজার৭৯১ কোটি টাকা।

বৃহস্পতিবারের বাজার পর্যালোচনা

আজ বৃহস্পতিবার (২০ জুন) ডিএসই’র প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ৮২.৭৪ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ৫ হাজার ২৪৪ পয়েন্টে। অন্য দুই সূচকের মধ্যে ডিএসই শরীয়াহ সূচক ২৪.৭৪ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ১ হাজার ১৪৬পয়েন্টে এবং ডিএসই-৩০ সূচক ৩১.৩৪ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ১ হাজার ৮৭৫ পয়েন্টে।

আজ ডিএসইতে ৪৫২ কোটি ৯৪ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। আগের কর্মদিবসে লেনদেন হয়েছিল ২৪৫ কোটি ৬৭ লাখ টাকার। আগের দিনের তুলনায় আজ লেনদেন বেড়েছে ২০২ কোটি ২৭ লাখ টাকা।

আজ ডিএসইতে ৩৯৩টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে দর বেড়েছে ২৮৮টির, কমেছে ৫৫টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৫০টির।

অপর শেয়ারবাজার চট্রগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএই) আজ লেনদেন হয়েছে ১২১ কোটি ৬৩ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট। আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ৬ কোটি ৮৭ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট।

এদিন সিএসইতে ১৯৯টি প্রতিষ্ঠান লেনদেনে অংশ নিয়েছে। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১২২টির, কমেছে ৪৮টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ২৯টি প্রতিষ্ঠানের।

আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ১৪৫টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট। এরমধ্যে দর বেড়েছিল ৫৩টির, কমেছিল ৭১টির এবং অপরিবর্তিত ছিল ২১টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট।

এএসএম/

পাঠকের মতামত:

শেয়ারবাজার এর সর্বশেষ খবর

শেয়ারবাজার - এর সব খবর



রে