ঢাকা, মঙ্গলবার, ২১ মে, ২০২৪
Sharenews24

বোতলজাত তেলের দাম বাড়ল, খোলা তেলে সুখবর

২০২৪ এপ্রিল ১৮ ১৭:৩৯:৩৮
বোতলজাত তেলের দাম বাড়ল, খোলা তেলে সুখবর

নিজস্ব প্রতিবেদক : লিটার প্রতি ৪ টাকা বাড়ল বোতলজাত সয়াবিন তেলের দাম। এর আগে এই পণ্যের দাম ১৬৩ টাকা ছিল। তবে দাম বাড়ানোর পরে আজ থেকে ১৬৭ টাকা ক্রয় করতে হবে বোতলজাত তেল। খোলা সয়াবিন তেল লিটারপ্রতি ২ টাকা কমিয়ে ১৪৭ টাকা নির্ধারণ করেছে সরকার।

বৃহস্পতিবার (১৮ এপ্রিল) দুপুরে মন্ত্রণালয়ে ব্রিফিংয়ে এই সিদ্ধান্তের কথা জানান বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল হক টিটু।

আগামীকাল শুক্রবার থেকেই তেলের নতুন দাম কার্যকর হবে বলে জানিয়েছেন প্রতিমন্ত্রী।

এর আগে আজ সকালে ট্যারিফ কমিশন, বাংলাদেশ ভেজিটেবল অয়েল রিফাইনার্স অ্যান্ড বনস্পতি ম্যানুফ্যাকচারার্স অ্যাসোসিয়েশন ও বাণিজ্য মন্ত্রণালয় বৈঠক করে।

ব্যবসায়ীরা ভোজ্যতেলের দাম লিটারপ্রতি ১০ টাকা বাড়ানোর প্রস্তাব দিয়েছিল। তবে বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম টিটু বলেছিলেন, ভোজ্যতেল আগের দামে ফিরে যাওয়ার সুযোগ নেই। এরপর ব্যবসায়ীদের দাম বৃদ্ধির প্রস্তাব ট্যারিফ কমিশন নাকচ করে দেয়।

তবে ভোজ্যতেলের মূল্য পরিস্থিতি নিয়ে কমিশন তার নিজস্ব পর্যালোচনা অব্যাহত রেখেছে। ভোজ্যতেলের দাম বৃদ্ধির বিষয়ে আজ চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয় মন্ত্রণালয়।

গত সোমবার বাংলাদেশ ভেজিটেবল অয়েল রিফাইনার্স অ্যান্ড বনস্পতি ম্যানুফ্যাকচারার্স অ্যাসোসিয়েশনের চিঠিতে আবারও সয়াবিন তেলের দাম বাড়ানোর প্রস্তাব করা হয়। লিটারপ্রতি ১০ টাকা বাড়িয়ে নতুন দাম নির্ধারণ করা হয় ১৭৩ টাকা।

বোতলজাত তেলের দাম বাড়ানোর বিষয়ে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিবকে লেখা এক চিঠিতে বলা হয়, ‘আপনার সদয় অবগতির জন্য জানাচ্ছি যে, ভোজ্যতেলের কাঁচামাল আমদানি, উৎপাদন পর্যায়ে গত ৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ তারিখে জারি করা এসআরওদ্বয়ের মেয়াদ ১৫ এপ্রিল, ২০২৪ তারিখে শেষ হচ্ছে বিধায় আগামী ১৬ এপ্রিল, ২০২৪ তারিখ থেকে বাজারে ভোজ্য তেল (পরিশোধিত পাম তেল ও পরিশোধিত সয়াবিন তেল) সরবরাহে ভ্যাট অব্যাহতি পূর্ববর্তী মূল্যে পণ্য সরবরাহ হবে।’

চিঠিতে আরো বলা হয়, ১৬ এপ্রিল থেকে বোতলজাত ১ লিটার সয়াবিন তেলের দাম ১৭৩ টাকা, ৫ লিটার ৮৪৫ টাকা এবং খোলা ১ লিটার পাম তেলের দাম ১৩২ টাকা প্রস্তাব করা হয়। ট্যারিফ কমিশন প্রস্তাব নাকচ করায় আপাতত এ দাম কার্যকর হচ্ছে না।

এরপর ১৬ এপ্রিল ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটি (ডিআরইউ) আয়োজিত মিট দ্য রিপোর্টার্সে বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম টিটু বলেছিলেন, তেলে ৫ শতাংশ ডিউটি কমিয়েছিলাম, এতে ভোক্তা পর্যায়ে ১০ টাকা কমেছিল তেলের দাম।

সেই ভ্যাট ছাড়ের এ মেয়াদ নির্ধারণ করা হয় ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত। আমাদের ট্যারিফ কমিশন এটা নিয়ে কাজ করছে। দেখা হচ্ছে মিলাররা কী দামে তেলের কাঁচামাল আনছেন তার দাম কেমন পড়ছে ইত্যাদি বিষয়ে। তবে তেলের দাম পূর্বের দামে ফিরে যাওয়ার সুযোগ নেই এটা বলতে পারি।

শেয়ারনিউজ, ১৮ মার্চ ২০২৪

পাঠকের মতামত:

জাতীয় এর সর্বশেষ খবর

জাতীয় - এর সব খবর



রে